তুই কি আমার তুমি হবি

তুই কি আমার নায়িকা হবি

গোলাপ চুলে বেঁধে!

কাজলকালো চোখে দেখবি আমায়

সাঝেরবেলায় সেধে!

 

তুই কি আমার সঙ্গী হবি

কবিতা শুনবি হেসে!

আমার চোখে তোর স্বপ্ন দেখবি

মেঘের মাঝে ভেসে!

 

তুই কি আমার কান্না হবি

বেদনার মাঝে সুখের!

আমার মাঝে তুই তোকে খুঁজবি

ভাষা বুঝে এ চোখের!

 

তুই কি আমার তুমি হবি

আত্মা আমার কায়ার!

বুকেতে তোর ঘর বানাবি

অশ্রুসিক্ত ছায়ার…!

 

 

 

 

তুই কি আমার তুমি হবি” সম্পর্কে ৩টি মন্তব্য

  1. সাধারণত ছন্দোবদ্ধ ভাবে এত সুন্দর ভাবের প্রকাশ আজকাল খুব বেশি দেখি না । কবিতাটি যেমন গঠনগত ভাবে সঠিক ছন্দ মেনে চলেছে, তেমনি এর অর্থও পরিপূর্ণ । কবিতাটিতে যে ভাষ্য ফুটে উঠেছে সেটি খুব বিরল কিছু নয়. বরং এরকম তুই থেকে তুমি এর ব্যাপারটা অনেকেরই জীবনে আসে । আর যখন কেউ সেই জিনিসটা উপলব্ধি করে তার বন্ধুকে বলতে চায়, তখন গুছিয়ে বলাটা খুব সহজ নয় ।
    এই কবিতাটি সেই অনুভূতিকে যেভাবে সাবলীল ভাবে উপস্থাপন করছে, তা আসলেই চমৎকার ।

    কুডোস হতাশ কবি, লিখতে থাকুন; লেখালিখিতে আপনার প্রথম লেখা পড়েই যতটা ভালো লাগলো, আশা করি পরবর্তিতে এরকম ও আরো ভালো লেখা পড়তে পারবো 🙂

মন্তব্য করুন